‘তারেক রহমানের নির্দেশেই শপথ নিয়েছি’

প্রকাশ : ২৯ এপ্রিল ২০১৯, ২০:০১ | আপডেট : ২৯ এপ্রিল ২০১৯, ২০:২২

অনলাইন ডেস্ক

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশেই শপথ নিয়েছি বলে দাবি করেছেন দলটির যুগ্ম মহাসচিব ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য হারুনুর রশীদ।

সোমবার জাতীয় সংসদ ভবনে স্পিকারের কক্ষে শপথ গ্রহণ শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এমন দাবি করেন।

হারুনুর রশীদ বলেন, চাপ ছিল, তবে আমরা দলীয় সিদ্ধান্তে শপথ নিয়েছি। আমাদের নেত্রী খালেদা জিয়ার মুক্তিসহ দেশের মানুষের কথা বলতে আমরা সংসদে যাচ্ছি।

এ সময় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের শপথ না নেয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, মহাসচিবের বিষয়টা আমি অবহিত নই। সেটা উনার ব্যাপার, আপনারা উনার সঙ্গে কথা বলেন।

দল থেকে বহিষ্কার করা হবে কি-না জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমরা দলীয় সিদ্ধান্তে শপথ নিয়েছি, দল কীভাবে বহিষ্কার করবে?

এর আগে শপথ নেয়া সংসদ সদস্য জাহিদুর রহমানকে বহিষ্কারের বিষয়ে তিনি বলেন, তবে উনি ইতোমধ্যে দলের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন। এখন দল সেটা বিবেচনা করবে।

এ সময় সংসদে গিয়ে পুনর্নির্বাচনের দাবি ও জাতীয় সংলাপের আয়োজন করে পুনর্নির্বাচনের দাবি জানাবেন বলে জানান এই সংসদ সদস্য।

এর আগে বিকেল ৫টা ৪০ মিনিটে জাতীয় সংসদ ভবনে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বিএনপির চারজন সংসদ সদস্যকে শপথ বাক্যপাঠ করান।

শপথ নেয়া চারজন হলেন- চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনের মো. আমিনুল ইসলাম, চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের মো. হারুনুর রশীদ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের আবদুস সাত্তার ভূঁইয়া এবং বগুড়া-৪ আসনের মোশাররফ হোসেন।

গত ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত সংসদ নির্বাচনে বিপুল সংখ্যাগরিষ্ঠতা পায় আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন জোট ও মিত্ররা। মাত্র ৮টি আসন পায় বিএনপি নেতৃত্বাধীন জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। নির্বাচিত আটজনের মধ্যে ছয়জন বিএনপির আর দু’জন গণফোরামের। তবে নির্বাচনে অনিয়ম ও কারচুপির অভিযোগ তুলে তা প্রত্যাখ্যান করে ঐক্যফ্রন্ট।

গণফোরামের দুই সংসদ সদস্যের মধ্যে মৌলভীবাজার-২ আসন থেকে বিএনপির প্রতীক নিয়ে নির্বাচিত সুলতান মোহাম্মদ মনসুর গত ৭ মার্চ শপথ নিয়ে সংসদে যোগ দেন। সিলেট-২ আসন থেকে গণফোরামের প্রতীক নিয়ে নির্বাচিত মোকাব্বির খানও গত ২ এপ্রিল শপথ নেন।

সর্বশেষ গত বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ নেন জাহিদুর রহমান। এ কারণে শনিবার রাতে তাকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়। ওই বহিষ্কারাদেশের মাধ্যমে সংসদে যোগ দেয়ার বিষয়ে দলটি তাদের অবস্থান পরিষ্কার করে।

পিডিএসও/রি.মা