নোমান-নওফেল কোলাকুলি

প্রকাশ : ১১ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৮:২৪

চট্টগ্রাম ব্যুরো
ama ami

চট্টগ্রাম নগরীর শাহ আমানত মাজারের অদূরে জেল রোড মোড়ে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমানকে দেখে গাড়ি থেকে নেমে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল তার সঙ্গে কোলাকুলি করেছেন।

নোমান শাহ আমানত মাজার জিয়ারত শেষে তার নির্বাচনী এলাকায় যাচ্ছিলেন। ওই সময় নওফেল নির্বাচনী প্রচারণার জন্য যাচ্ছিলেন বক্সিরহাট এলাকার আনসার ক্লাবের দিকে। এ সময় জেল রোডের মুখে আবদুল্লাহ আল নোমানকে দেখে গাড়ি থেকে নেমে করমর্দন করেন তিনি। পরে কোলাকুলি ও কুশল বিনিময় হয় তাদের। 

মঙ্গলবার বেলা সোয়া ১২টার পর এই সাক্ষাৎ হয় তাদের। ভোটের মাঠে প্রবল প্রতিদ্বন্দ্বী বিপরীতমুখী ২ রাজনৈতিক দলের ২ নেতার মধ্যে এমন সৌহার্দ্য দেখে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন সেখানে থাকা সাধারণ লোকজন।

বর্ষীয়ান রাজনীতিক আবদুল্লাহ আল নোমান চট্টগ্রাম-১০ (ডবলমুরিং) আসনে ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। নোমান একাধিকবার চট্টগ্রাম থেকে সাংসদ নির্বাচিত হয়ে খালেদা জিয়ার সরকারে মন্ত্রী ছিলেন।

অপরদিকে তরুণ আওয়ামী লীগ নেতা নওফেল এবারই প্রথম সংসদ নির্বাচনে লড়ছেন চট্টগ্রাম-৯ (কোতোয়ালী) আসনে। এর আগে এ আসন থেকেই নির্বাচন করতেন নোমান।১৯৯১ সালে প্রথম নওফেলের বাবা প্রয়াত এ বি এম মহিউদ্দিন চৌধুরীকে হারিয়ে সাংসদ নির্বাচিত হয়েছিলেন তিনি। রাজনীতিতে প্রতিপক্ষ হলেও সব সময় ব্যক্তিগত সম্পর্ক ভালো ছিল মহিউদ্দিন-নোমানের। দুজনেরই পৈত্রিক বাড়ি চট্টগ্রামের রাউজানে।

নওফেলের সঙ্গে থাকা চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের উপ-দফতর সম্পাদক ও কাউন্সিলর জহরলাল হাজারী বলেন, মাজার জেয়ারত শেষে ফিরছিলেন নোমান সাহেব। নওফেল ভাইকে দেখে তিনি বুকে জড়িয়ে নেন। এরপর উনার হাত ধরে নওফেল ভাই দোয়া চেয়েছেন। ওই সময় ৩ মিনিটের মতো একসঙ্গে ছিলেন তারা।

পিডিএসও/তাজ