সংলাপ শেষ না হওয়া পর্যন্ত তফসিল নয় : ঐক্যফ্রন্ট

প্রকাশ : ০৫ নভেম্বর ২০১৮, ১৯:৫২ | আপডেট : ০৫ নভেম্বর ২০১৮, ২০:১২

অনলাইন ডেস্ক

নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সঙ্গে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের প্রতিনিধি দলের বৈঠক সম্পন্ন হয়েছে। আসন্ন নির্বাচন নিয়ে সংলাপ শেষ না হওয়া পর্যন্ত তফসিল ঘোষণা না করার দাবি জানিয়েছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। প্রতিনিধি দলের নেতৃত্বে থাকা জেএসডির সভাপতি আ স ম আব্দুর রব বৈঠক শেষে সাংবাদিকের এ কথা জানান।

আব্দুর রব বলেন, আমরা ৭ নভেম্বর সংলাপের পর ফলাফল না আসা পর্যন্ত তফসিল ঘোষণা না করতে বলেছি। (ইসি) বিবেচনায় নিয়েছেন বলে তারা জানিয়েছেন। ২০১৯ সালের জানুয়ারির পরেও আপনারা (ইসি) দেশে থাকবেন, কথাটি মাথায় রেখেই কমিশনকে দায়িত্ব পালন করতে অনুরোধ জানানো হয়েছে। 

ইভিএম ব্যবহারের বিষয়ে রব জানান, আমরা বলেছি, দেশের জনগণ চায় না, রাজনৈতিক দলগুলো চায় না। তারপরও কেন ইভিএম ব্যবহারের জন্য তোরজোর হচ্ছে? তারা (ইসি) এই বিষয়টিও বিবেচনায় নিয়েছে। বৈঠকে সুষ্ঠু নির্বাচনে কমিশনের সক্ষমতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন ঐক্যফ্রন্ট নেতারা।

এদিকে বৈঠকের পর ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ ব্রিফিংয়ে বলেন, ঐক্যফ্রন্ট দাবি জানিয়েছে ৭ তারিখে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তাদের যে সংলাপ আছে, সেখানে কী হয় না–হয়, সেদিকে ইসি যেন লক্ষ রাখে। আর সংলাপ শেষ না হওয়া পর্যন্ত যেন তফসিল ঘোষণা করা না হয়। ঐক্যফ্রন্ট ইভিএম ব্যবহার না করার প্রস্তাব দিয়েছে, আমরা বলেছি সীমিত পরিসরে ব্যবহার করা হবে।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে হেলালুদ্দীন আহমদ বলেন, আগামী ৮ নভেম্বর আমাদের তফসিল ঘোষণার প্রস্তুতি আছে, তবে এ বিষয়ে ওই দিন সকাল ১০টায় ইসির সভায় সিদ্ধান্ত হবে। এতে ৭ নভেম্বরের সংলাপের বিষয়টি প্রতিফলিত হতে পারে।

এর আগে বিকেল ৪টায় জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের সভাপতি (জেএসডি) আ স ম আবদুর রবের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল আলোচনার জন্য নির্বাচন কমিশনে যায়।

ইসির সঙ্গে বৈঠকে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের পক্ষে জেএসডি সভাপতি আসম আবদুর রব, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ড. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, বরকউল্লাহ বুলু, শহীদ উদ্দিন মাহমুদ স্বপন ও নঈম জাহাঙ্গীর প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

পিডিএসও/তাজ