তরমুজের খোসা খাওয়া পরিবারের পাশে ‘মানুষ মানুষের জন্য’

প্রকাশ : ১১ এপ্রিল ২০২০, ২০:০৪ | আপডেট : ১১ এপ্রিল ২০২০, ২১:৪৬

নিজস্ব প্রতিবেদক

করোনা তাণ্ডব রুখতে গৃহবন্দি মানুষ। নেই কাজ তাই রোজগারের পথও বন্ধ। এমন সংকটময় মুহূর্তে অনাহারে দিন কাটাচ্ছে অসংখ্য পরিবার। রাজধানীর রামপুরায় তেমনই অনাহারী এক পরিবারের সন্ধান পাওয়া গেছে যারা গত দুই দিন ধরে ঘরে খাবার না থাকায় তরমুজের খোসা সিদ্ধ করে খাচ্ছিলেন। 

শনিবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ বিষয়টি নজরে আসে ‘মানুষ মানুষের জন্য’ সংগঠনের। তাৎক্ষণিক সেই পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করে তাদের খাবার উপহার দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয় সংগঠনের পক্ষ থেকে। 

সংগঠনের মাধ্যমে প্রতিদিনের সংবাদের অনলাইন এর পক্ষ থেকে যোগাযোগ করা হয় সেই পরিবারের সঙ্গে। জানা গেল, সেই অনাহারী পরিবারের সদস্য ৩ জন। স্বামী দিনমজুর আর স্ত্রী বাসা-বাড়িতে বুয়ার কাজ করেন। তাদের ৪ বছরের একটি সন্তানও আছে। গত ২ দিন যাবত ঘরে খাবার না থাকায় তরমুজের খোসা সিদ্ধ করে দিন পার করছিলেন। 

পরিবারের কর্তা আব্দুল মজিদ জানালেন, তারা বিভিন্ন জায়গায় খাদ্য সহায়তা চেয়েও পাননি। এমনকি এলাকাবাসীর পক্ষ থেকেও তাদেরকে কোনও ধরণের সহযোগিতা করা হয়নি। এই অবস্থায় তাদের পাশের বাসার একজনের মাধ্যমে এ আর রাজ নামের একজন গণমাধ্যকর্মীর সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। 

আরও পড়ুন : ১০০ টাকায় ‘মানুষ মানুষের জন্য’

সেই গণমাধ্যমকর্মী তাদের এমন অবস্থা জেনে বিভিন্ন জায়গায় খাদ্য সহায়তা চেয়েও পাননি। এমনকি ৩৩৩ নম্বরে যোগাযোগ করেও ব্যর্থ হয়ে আব্দুল মজিদের ফোন নম্বর দিয়ে এ আর রাজ তার ফেসবুক আইডি থেকে সহযোগিতা চান। এরপর তিনি মানুষ মানুষের জন্য সংগঠনের কাছেও বিষয়টি অবগত করেন। সেই পোস্টটি চোখে পড়ার পর শনিবার বিকেলে সংগঠন এর পক্ষ থেকে আব্দুল মজিদের পরিবারের কাছে খাদ্য সহায়তা পৌঁছানো হয়। 

খাদ্যদ্রব্য পেয়ে পরিবারটি অনেক খুশি বলে জানিয়েছেন গৃহকর্ত্রী। তিনি বলেন, আমাদের এই দুর্দিনে মানুষ মানুষের জন্য’ থেকে যে উপহার দেয়া হয়েছে তার জন্য আমরা আল্লাহর কাছে দোয়া করি।

পিডিএসও/মা