বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ : স্থানীয় সরকারমন্ত্রী

প্রকাশ : ২৩ আগস্ট ২০১৯, ১৯:৪৯

নিজস্ব প্রতিবেদক

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ। আর অসাম্প্রদায়িক চেতনার ক্ষেত্রে আমাদের সরকারের অবস্থান জিরো টলারেন্স। ধর্ম যার যার, উৎসব সবার; এই নীতিতে সরকার বদ্ধপরিকর।

শুক্রবার রাজধানীর মেরুল বাড্ডায় দশম সংঘরাজ জ্যোতিঃপাল মহাথেরু স্বরণানুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য তিনি এ কথা বলেন।

সেমিনারে সভাপতিত্ব করেন, সংঘরাজ জ্যোতিঃপাল মহাথের বৌদ্ধ মহাবিহারের অধ্যক্ষ শ্রীমৎ শীলভদ্র মহাথের। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ। প্রবন্ধ উপস্থাপনা করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পালি -বুদ্ধিস্ট স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক ড. বিমান চন্দ্র বড়ুয়া। আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন  উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এম এ মান্নান, রাষ্ট্রপতি কার্যলয়ের সচিব সম্পদ বড়ুয়া, শ্রীমৎ ধর্মরক্ষিৎ মহাথের প্রমুখ।

স্থানীয় সরকারমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ একটি সার্বজনীন রাষ্ট্র। এ দেশে ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সবাই একসঙ্গে বসবাস করছে। ধর্ম যার যার অনুষ্ঠান সবার; এরকম অনুভূতি নিয়ে আমরা কাজ করছি। আপনারা দেখেন, ঈদের সময় বিভিন্ন দেশের অমুসলিম রাষ্ট্রদূতসহ অন্য নেতারা এই আনন্দ ভাগাভাগি করতে আসেন। তেমনিভাবে আমিও তাদের ধর্মীয় অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করি।

তিনি আরো বলেন, জ্যোতি:পাল মাহথেরু আমার শ্রদ্ধাভাজন একজন ব্যক্তি। তার জন্মস্থান আমার সংসদীয় আসনের মধ্যে। সে হিসেবে তার সঙ্গে অনেক দেখা সাক্ষাৎ হয়েছে আমার। তিনি ছিলেন ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষ একজন মানুষ। তার আর্দশ ছিল সকল প্রাণী সুখী হউক। তিনি সেই আদর্শে মানুষের মঙ্গলের জন্য কাজ করে গেছেন।

পিডিএসও/তাজ