রাজধানীতে রিকশাচালকদের সড়ক অবরোধে চরম দুর্ভোগ

প্রকাশ : ০৯ জুলাই ২০১৯, ০৯:২৬ | আপডেট : ০৯ জুলাই ২০১৯, ১৩:০৭

অনলাইন ডেস্ক

রাজধানীর গুরুত্বপূর্ণ তিনটি সড়ক থেকে রিকশা তুলে দেয়ার প্রতিবাদে রাজধানীর মালিবাগ, রামপুরা, বাড্ডাসহ বেশ কয়েকটি সড়কে নেমে আন্দেলন করছে রিকশাচালকরা। 

মঙ্গলবার সকাল ৮টায় রাজধানীর রামপুরার ওয়াপদা রোড, উত্তর বাড্ডা ও কুড়িল বিশ্বরোডের সড়কের একপাশে অবরোধ করে। এর ফলে প্রচণ্ড যানজটের সৃষ্টি হয়। 

এদিকে থমকে আছে রাজধানীর ব্যস্ততম প্রগতি সরণি। অবরোধে মালিবাগ-রামপুরা হয়ে উত্তর বাড্ডা পর্যন্ত সড়ক স্থবির হয়ে আছে। বিপরীত দিকের সড়ক পুরোটাই ফাঁকা, সেখানে মানুষ পায়ে হেঁটে চলাচল করছেন, কারণ কুড়িল বিশ্ব রোড থেকে কোনো গাড়ি এমনকি মোটরসাইকেলও ঢুকতে দেয়া হচ্ছে না। ফলে সকাল থেকেই এই সড়ক ব্যবহার করা কর্মক্ষেত্রগামী সাধারণ মানুষ পড়েছেন বিড়ম্বনায়।

অবরোধের কারণে সড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে। রিকশাচালকদের দাবি, প্রধান সড়কগুলোতে রিকশা চলাচলের অনুমতি দিতে হবে। না হলে আন্দোলন অব্যাহত থাকবে।

সকাল ৮টা থেকে এ আন্দোলন শুরু হয়েছে। চলবে দুপুর ১টা পর্যন্ত। আজ পাঁচ ঘণ্টা এ কর্মসূচি পালন করবে তারা। এর মধ্যে দাবি না মানলে কালকে সাত ঘণ্টা সড়কে থাকবে বলে জানায় রিকশাচালকরা।

বাড্ডা থানার ডিউটি অফিসার এসআই মান্নান জানান, সকাল ৮টা থেকে উত্তর বাড্ডার ফুজি টাওয়ারের সামনে চালকরা অবস্থান নেন। সড়কে যানচলাচল বন্ধ রয়েছে।রিকশাচালকদের সড়ক অবরোধের কারণে কুড়িল বিশ্বরোড থেকে মালিবাগ পর্যন্ত গাড়ি চলাচল বন্ধ রয়েছে বলে তিনি জানান।

তিনি বলেন, ঘটনাস্থলে ওসি রফিকুল ইসলামসহ পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা আছেন। তাদের সঙ্গে কথা বলে রিকশাচালকদের সরিয়ে দেয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে। এদিকে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত অবরোধ চলছে।

পিডিএসও/তাজ