শিক্ষার্থীর আত্মহত্যার ঘটনা বাজে দৃষ্টান্ত : হাইকোর্ট

প্রকাশ : ০৪ ডিসেম্বর ২০১৮, ১২:৫৫ | আপডেট : ০৪ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৫:৩৫

অনলাইন ডেস্ক

ভিকারুননিসা নূন স্কুলের শিক্ষার্থী অরিত্রী অধিকারীর (১৫) আত্মহত্যার ঘটনায় বিস্ময় প্রকাশ করে এ সংক্রান্ত রিট মামলা দায়ের করতে বলেছেন হাইকোর্ট।

মঙ্গলবার সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী সায়েদুর হক সুমন এ ঘটনায় প্রকাশিত সংবাদ নজরে আনলে বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি রাজিক আল জলিলের হাইকোর্ট বেঞ্চ একে ‘বাজে দৃষ্টান্ত’ ও ‘সাংঘাতিক ঘটনা’ বলে মন্তব্য করেছেন। একইসঙ্গে আগামীকালের মধ্যে বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদ যুক্ত করে এ আইনজীবীকে রিট দায়ের করতে বলেছেন।

আইনজীবী সায়েদুল হক সুমন সাংবাদিকদের বলেন, গতকাল ভিকারুননিসা নূন স্কুলের নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী অরিত্রী অধিকারী আত্মহত্যার ঘটনাটি আদালতের নজরে আনি। আদালতকে আমরা বলেছি, এ ধরনের একটি সংকেত যদি সারাদেশে যায়, যে ভালো স্কুলে, ভালো করার উপায় হচ্ছে ভালো করে শাসন করা। আর এই শাসনের মাত্রা এমন পর্যায়ে যাবে যে দুই/একজন আত্মহত্যাও করতে পারে।

আমরা আদালতকে বলেছি, সিঙ্গাপুরের মতো দেশ যেখানে প্রেসারের কারণে পরীক্ষা পদ্ধতিই উঠিয়ে দেওয়া হচ্ছে। অথচ আমাদের দেশের পরীক্ষা পদ্ধতির ওপর এতো প্রেসার দেওয়া হচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, একটি স্কুলের প্রিন্সিপাল মেয়ের সামনে তার বাবা-মাকে অপমান করতে পারেন কিনা। মেয়েটি আত্মহত্যা করতে বাধ্য হয়েছে তার সামনে তার বাবা-মাকে অপমান করা হয়েছে এজন্য। এ কারণে আমরা একটা সঠিক তদন্ত কমিটি চাই। যে তদন্ত রিপোর্টে জানতে পারবে তা বাবা-মার সঙ্গে কেন এমনটি করা হয়েছে? 

এ বিষয়ে আগামীকাল যাতে আবেদন আকারে নিয়ে আসি সেটি কোর্ট বলে দিয়েছেন। কাল এ বিষয়ে আমরা একটা রিট দায়ের করবো। আশা করি ভালো একটা আদেশ পাবো। দায়ীদের বিরুদ্ধে তদন্ত করে কেন ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হবে না এমন নির্দেশনা চাইবো। এ সময় আদালত বলেছেন, এটা একটা বাজে দৃষ্টান্ত। এটা একটা সাংঘাতিক ঘটনা। এমনটি হতে পারে না।

পিডিএসও/হেলাল