বন্যাদুর্গতের উদ্ধারে হাতি!

প্রকাশ : ১৭ আগস্ট ২০১৭, ১৩:১৫ | আপডেট : ১৭ আগস্ট ২০১৭, ১৩:২০

অনলাইন ডেস্ক

ভারী বর্ষণ, প্রাকৃতিক দুর্যোগ এবং বন্যায় আক্রান্ত বাংলাদেশ, ভারত, নেপাল। এরইমধ্যে দেশ তিনটিতে বন্যার কবলে পড়ে কোটি মানুষ বাসস্থানহীন অবস্থায় নানা দুর্ভোগে দিন কাটাচ্ছেন।

বন্যাকবলিত মানুষদের উদ্ধারেও নেয়া হচ্ছে বিভিন্ন কর্মসূচি। বিভিন্ন স্থানে বন্যার পানির তীব্র স্রোতের কারণে উদ্ধার অভিযানও ব্যাহত হচ্ছে। তাই বন্যা আক্রান্ত মানুষদের নিরাপদে সরিয়ে আনতে নেপালে নেয়া হয়েছে অভিনব ব্যবস্থা। বন্যাদুর্গত মানুষদের উদ্ধারে ব্যবহার করা হচ্ছে হাতি। যা সবার দৃষ্টি কাড়তে সক্ষম হয়েছে। এরইমধ্যে হাতির মাধ্যমে কয়েকশ মানুষকে উদ্ধার করা হয়েছে।

নেপালের কয়েকটি বিখ্যাত পর্যটন কেন্দ্রে বন্যার পানিতে আটকা পড়া পর্যটকদের উদ্ধারে হাতি ও ভেলা ব্যবহার করেন দেশটির উদ্ধারকর্মীরা। নেপালের দক্ষিণাঞ্চলীয় চিতওয়ান জেলার সৌরাহা এলাকার হোটেল ও রিসোর্টগুলো বন্যায় ডুবে যাওয়ার ফলে এ পদক্ষেপ গ্রহণ করে দেশটির সরকার। ভারী বৃষ্টিতে বন্যা ও ভূমিধস দেখা দিয়েছে নেপালে।

নেপালে বন্যায় কমপক্ষে ৪৮ হাজার বাড়িঘর পানিতে ডুবে গেছে। শতকরা ৮০ ভাগ ফসল নষ্ট হয়েছে। রেডক্রস সতর্ক করে বলেছে, পান করার পানি ও খাদ্যের মারাত্মক সঙ্কট দেখা দিতে পারে। এ থেকে সেখানে ভয়াবহ মানবিক সঙ্কট দেখা দিতে পারে।

পিডিএসও/তাজ/হেলাল