কানাডায় ইতিহাস গড়লেন বাংলাদেশের ডলি বেগম

প্রকাশ : ০৮ জুন ২০১৮, ১৪:৩৯ | আপডেট : ০৮ জুন ২০১৮, ১৫:০৩

অনলাইন ডেস্ক

প্রথম কোন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত কানাডায় সংসদ সদস্য (এমপি) নির্বাচিত হয়েছেন মৌলভীবাজারের ডলি বেগম। দেশটির স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত অন্টারিও প্রভিন্সিয়াল পার্লামেন্ট নির্বাচনে স্কারবোরো সাউথ ওয়েস্ট আসন থেকে নিউ ডেমোক্রেটিক পার্টির (এনডিপি) সদস্য হিসেবে তিনি নির্বাচিত হন। তার এই বিজয়ের পর তিনি দেশবাসীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। তিনি বলেন, নির্বাচনে আমি অভিভূত হয়েছি মতভেদ ভুলে বাঙালিদের ঐক্যবদ্ধতা দেখে। এ বিজয় আমার নয়; সকল বাংলাদেশির বিজয়। তাই ঐক্যের কোন বিকল্প নেই। ঐক্যের জয় অনিবার্য। তিনি সকল ভোটাদের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। 
এদিকে কানাডায় প্রথম বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত এমপি নির্বাচিত হওয়ায় ডলিকে অভিন্দন জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম এমপি এবং মৌলভীবাজার-৩ আসনের সংসদ সদস্য সৈয়দা সায়রা মহসীন।
মৌলভীবাজারের মনুমুখ ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান সুজন মিয়ার নাতনি ডলি বলেন, কানাডার মূলধারার রাজনৈতিক দল এনডিপি তাকে মনোনয়ন দিয়ে মূলত বাংলাদেশি কমিউনিটিকে স্বীকৃতি দিয়েছে। তিনি বলেন, আমার সামনের পথ অনেক কণ্টকাকীর্ণ। কিন্তু আমার অটুট মনোবল ও দৃঢ় বিশ্বাস, আপনারা যদি আমার পাশে দাঁড়ান এবং সমর্থন, সহযোগিতা ও পরামর্শ দেন তাহলে আমি অবশ্যই সফল হব।
মাত্র ১১ বছর ডলি বয়সে মা-বাবার সঙ্গে কানাডায় যান। ২০১৫ সালে টরন্টো ইউনিভার্সিটি কলেজ লন্ডন থেকে উন্নয়ন প্রশাসনে মাস্টার্স করেন। পরে সিটি অফ টরন্টোতে কর্মরত ছিলেন ১০মাস। গত এপ্রিল পর্যন্ত রিচার্স এনালিস্ট হিসেবে কাজ করেছেন দ্য সোসাইটি অব এনার্জি প্রফেশনালসে। তিনি এবার নিউ ডেমোক্রেটিক পার্টি (এনডিপি) থেকে অন্টারিও এর স্কারবোরো সাউথওয়েস্ট আসন থেকে এমপিপির মনোনয়ন পান এবং প্রাদেশিক নির্বাচনে প্রাজ্ঞ প্রতিদ্বন্দ্বিদের হারিয়ে তারুণ্যের প্রতীক হিসেবে ১২৩ জনের সঙ্গে সংসদের আসনে বসতে যাচ্ছেন। 
নিউ ডেমোক্রেটিক পার্টি (এনডিপি) থেকে নির্বাচিত ডলি বেগম প্রগ্রেসিভ কনসারভেটিভ পার্টির গ্রে এলিসকে ৬ হাজারেরও বেশি ভোটের ব্যবধানে হারান। ডলির প্রাপ্ত ভোট ১৯ হাজার ৭৫১। গ্রে এলিস পেয়েছেন ১৩ হাজার ৫৫২ ভোট, লিবারেল পার্টির লরেঞ্জো বেরারদিনেত্তি (সাবেক এমপিপি) পেয়েছেন ৮ হাজার ২১৫ ভোট।
ডলি বেগম ১,৯৭৫১ তথা ৪৫.৫১% ভোট পান। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রগ্রেসিভ কনসারভেটিভ পার্টির গ্রে এলিয়েস ডলির চেয়ে ৬ হাজারের চেয়েও কম ভোট পান- ১৩,৫৫২ তথা ৩১.৩২% আর লিবারেল পার্টির লরেঞ্জো বেরারডিনেত্তি পান ৮,২১৫ অর্থাৎ ১৮.৯৩% এবং গ্রিন পার্টির ডেভিড গ্রান্ডে পেয়েছেন ১১৪৪.২৬% ভোট।

পিডিএসও/হেলাল/মুস্তাফিজ