শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে অচল কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়

প্রকাশ : ২৬ জানুয়ারি ২০২০, ১৩:০৩ | আপডেট : ২৬ জানুয়ারি ২০২০, ১৬:৫৫

জাককানইবি প্রতিনিধি

পরিবহন সংকট, বিভিন্ন নিয়োগে অসচ্ছতা, আবাসন সংকটসহ নানান সমস্যা সমাধানে দেওয়া প্রতিশ্রুতি না রক্ষা, শিক্ষক হয়রানি কাণ্ড, উপাচার্যের উপর নানা দুর্নীতির অভিযোগে  আন্দোলন করছেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। তারা প্রশাসনিক ভবনে তালা লাগিয়ে দিয়েছেন। 

রোববার সকাল ১০টায় ভিসির প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী বাস দেওয়া, প্রকট হারে আবাসন সংকট নিরসনে উদ্যোগ নেওয়া, চাকরি নিয়োগে অনিময়ের অভিযোগের প্রেক্ষিতে ব্যবস্থা গ্রহণ ও মসজিদ-মন্দির নির্মাণের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের মূল ফটকে তালা ঝুলিয়ে দেন শিক্ষার্থীরা। এরপরে তারা নানা স্লোগান দিতে দিতে অবস্থান নেন জয় বাংলা চত্ত্বরে। বিভিন্ন জায়গা থেকে ছাত্রছাত্রীরা এসে জড়ো হতে থাকেন।

প্রশাসনের কালো হাত, ভেঙে দাও গুড়িয়ে দাওসহ নানা স্লোগানে মুখরিত জয়বাংলা ভাস্কর্য চত্ত্বর। এ নিয়ে ক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা বলেন, বৃহত্তর আন্দোলনের মুখে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি গতবছর নভেম্বরে বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪টি নিজস্ব বাস আনার প্রতিশ্রুতি দিলেও এখন পর্যন্ত কোনো বাসের দেখা পেলাম না। অবশ্য শুধু বাসই নয়, মসজিদ-উপসানালয়, টিএসসি, অডিটোরিয়ামসহ আরও অনেক কিছুর প্রতিশ্রুতি দিলেও আদতে বাস্তবায়ন করার দৃশ্যমান কোন বাস্তবায়ন দেখা যায়নি। দাবি না মানা পর্যন্ত তারা আন্দোলন চালিয়ে যাবেন বলে জানান।

উল্লেখ্য, বিশ্ববিদ্যালয়ে দুটি হলের কাজ চলমান।প্রায় দুই বছর আগে কাজ শেষ করার কথা থাকলেও এখন পর্যন্ত কাজ শেষ করতে পারেনি বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। এছাড়া সম্প্রতি বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়োগে অনিয়ম, শিক্ষক রফিকুল আমিনকে হয়রানির অভিযোগ উঠেছে । 

পিডিএসও/হেলাল