র‍্যাগ ডে’র বাজনায় ক্লাস-পরীক্ষা বিঘ্নিত

প্রকাশ : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৪:১৬

চবি প্রতিনিধি

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টা। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) কলা অনুষদের বিভাগসমূহে চলছে ক্লাস-পরীক্ষা। অপরদিকে উচ্চস্বরে সাউন্ড বক্সে গান-বাজনা ও নাচের মাধ্যমে নিজেদের র‍্যাগ ডে উৎসব পালনে ব্যস্ত নাট্যকলা বিভাগের শিক্ষার্থীরা। এতে করে বিঘ্নিত হয় অনুষদের ক্লাস-পরীক্ষা। নির্দিষ্ট সময়ের আগেই ফাঁকা হয়ে যায় পুরো অনুষদ।

আজ সকাল ৯টা থেকে কলা অনুষদের পশ্চিম গেটে চারটি সাউন্ড বক্স লাগিয়ে গান বাজনা শুরু করে তারা। গানের তালে চলতে থাকে নৃত্য ও হইচই। দুপুর ১টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে চলে তাদের এই আয়োজন।

খবর নিয়ে জানা যায়, উচ্চ আওয়াজে গান বাজনার ফলে শ্রেণিকক্ষে ক্লাস-পরীক্ষায় মনোযোগ দিতে না পেরে প্রায় অনেক বিভাগের শিক্ষকরা ক্লাস থেকে বের হয়ে চলে যান। পুরো অনুষদ ঘুরে দেখা যায়, ১টার আগেই বেশিরভাগ শ্রেণিকক্ষই ফাঁকা হয়ে যায়। অথচ এ সময়ে সেখানে রীতিমতো ক্লাস-পরীক্ষা চলার কথা।

কলা ও মানববিদ্যা অনুষদ সূত্রে জানা যায়, র‌্যাগ ডে পালনে তাদের কোনো অনুমতি ডিন অফিস থেকে নেওয়া হয়নি। 

আরবি বিভাগের ৪র্থ বর্ষের শিক্ষার্থী জহির রায়হান বলেন, যথারীতি আমাদের ক্লাস চলছিল। কিন্তু উচ্চ আওয়াজের কারণে ক্লাসে বসে থাকতে পারিনি।

ইংরেজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক রওনক জাহান বলেন, উচ্চ আওয়াজের কারণে আমি একটি ক্লাস ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়েছি। পরবর্তী ক্লাসটি নিতে গেলেও শিক্ষার্থীদের মনোযোগে যথেষ্ট ব্যাঘাত ঘটেছে। ক্লাস চলাকালে এ ধরনের কার্যক্রম অনভিপ্রেত।

এ বিষয়ে নাট্যকলা বিভাগের সভাপতি শামীম হাসান প্রতিদিনের সংবাদকে বলেন, ক্লাসে বিঘ্ন ঘটার বিষয়টি অনাকাঙ্খিত। আমাদের ছেলেমেয়েরা ভুল করেছিল। আমরা তাদের নিষেধ করে দিয়েছি।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর প্রণব মিত্র চৌধুরী বলেন, সাউন্ড ব্যবহার না করার শর্তে অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। ক্লাস বিঘ্ন হয় এমন কিছুতে আমি অনুমতি দিইনি।

পিডিএসও/হেলাল