চবিতে ভর্তি পরীক্ষায় প্রক্সির কারিগর আটক

প্রকাশ : ০৫ নভেম্বর ২০১৮, ১৯:২৭ | আপডেট : ০৫ নভেম্বর ২০১৮, ১৯:৫১

চবি প্রতিনিধি

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) ভর্তি পরীক্ষায় প্রক্সির সাথে সম্পৃক্ততায় ফের একজনকে আটক করা হয়েছে। আটককৃত শিক্ষার্থীর নাম আনোয়ার হোসেন। সোমবার কলা অনুষদ ভবনের সামনে থেকে তাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

জানা যায়, ২৮ অক্টোবর বিকালে ডি ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় প্রক্সির দায়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ড. ইউনুস ভবনের ১০৯ নম্বর কক্ষ থেকে  জামশেদুল কবির নামে এক শিক্ষার্থীকে আটক করা হয়। সে বাংলা বিভাগের ২০১১-১২ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী। পরবর্তীতে তাকে পুলিশে হস্তান্তর করে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে আনোয়ার হোসেনকে শোকজ করে চবি প্রশাসন।

আজ (সোমবার) সকালে কলা অনুষদের সামনে ঘোরাঘুরি করতে দেখলে তাকে আটক করে বিশ্ববিদ্যালয় কতৃপক্ষ। এ সময় তার মোবাইল ফোন জব্দ করে প্রক্টরিয়াল বডি।পরবর্তীতে তাকে হাটহাজারী থানায় প্রেরণ করা হয়।

এ ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর আলী আজগর চৌধুরী বলেন, আটককৃত আনোয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষাসহ বিভিন্ন পাবলিক পরীক্ষায় প্রক্সি ও নিয়োগ জালিয়াতির সাথে জড়িত। চট্টগ্রাম নগরীতে সোনার তরী ট্যুরিজম ও কুতুবদিয়া কম্পিউটার্স নামক দুটি প্রতিষ্ঠানের মালিক তিনি। তার মোবাইল থেকে আমরা প্রক্সি ও বিভিন্ন নিয়োগ সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ তথ্যাদি পেয়েছি। তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্হাসহ বিশ্ববিদ্যালয়েও প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

উল্লেখ্য, আনোয়ার হোসেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের ২০১৩-১৪ সেশনের শিক্ষার্থী । এক সন্তানের জনক আনোয়ার কক্সবাজার জেলার কুতুবদিয়া উপজেলার বিন্দাপাড়া গ্রামের সুলতান উদ্দিনের ছেলে।

পিডিএসও/তাজ