জাবিতে শিক্ষক সমিতির মানববন্ধন

প্রকাশ : ০৮ আগস্ট ২০১৮, ১২:৪১

তহিদুল ইসলাম, জাবি

নিরাপদ সড়ক দাবির বাস্তবায়ন এবং আন্দোলন চলাকালে সহিংসতার ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) মানববন্ধন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি। বুধবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনারসংলগ্ন প্রধান সড়কে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে বক্তারা সরকারের কাছে নিরাপদ সড়কের দাবির বাস্তবায়ন দাবি করেন।

অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ বলেন, নিরাপদ সড়ক চাই—এটা সকলের দাবি। এই দাবি বাস্তবায়নের জন্যে শিশুকিশোর-ছাত্রছাত্রীরা রাস্তায় নেমে দাবি বাস্তবায়নের জন্য নিজেরাই পরিশ্রম করেছে। তারা দিনের পর দিন দাবি আদায়ের জন্য রাস্তায় দাঁড়িয়েছিল কিন্তু সেখানে বিশৃঙ্খলা হয়নি, ভাংচুর হয়নি, সহিংসতা হয়নি। তবে দাবি যে ন্যায্য সেটা সবাই স্বীকার করা সত্বেও সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে। এই দাবি বাস্তবায়নের জন্য সরকারের প্রতিশ্রুতি পাওয়ার পরও তারা রাস্তা থেকে ওঠেনি, তারপরও তারা কয়েকদিন ছিল। এজন্য সরকারের অনেকেই ক্ষুব্ধ হয়েছেন। তবে তারা যে রাস্তায় ছিল এটার কারণ—প্রতিশ্রুতি পেলেই যে বাস্তবায়ন হবে এই নিশ্চয়তাটা আমাদের দেশে কম।

মানববন্ধনে সমাপনী বক্তব্যে জাবি শিক্ষক সমিতির সহসভাপতি অধ্যাপক রাশেদা আক্তার বলেন, আমরা জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি সরকারের কাছে দাবি জানাই যেন এমন কোন আইন যেন পাশ না করে যা কার্যকর হবে না। নিয়মতান্ত্রিকভাবে একটি আইন পাশ করে তা কার্যকর করে। কারণ, আইন অনেক আছে তবে তা কার্যকরী হয় না। তবে শুধু আইন দিয়েই হবে না। সরকার আইন করবে আর তারা বাস্তবায়ন করবে এটাও মনে হয় না সঠিক কোন পদক্ষেপ। আমাদের নিজেদেরও সচেতন হতে হবে। আর যারা ড্রাইভার-মালিক তাদেরকেও সতর্ক থাকতে হবে।

জাবি শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক বশির আহমেদের সঞ্চলনায় মানববন্ধনে অন্যদের মধ্যে প্রক্টর সিকদার মো. জুলকারনাইন, বাংলা বিভাগের অধ্যাপক শামীমা সুলতানা, ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক এটিএম আতিকুর রহমান, দর্শন বিভাগের অধ্যাপক মোহাম্মদ কামরুল আহসান, নৃবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক মির্জা তাসলিমা সুলতানা, সরকার ও রাজনীতি বিভাগের অধ্যাপক শামছুল আলম (সেলিম), পরিসংখ্যান বিভাগের অধ্যাপক মোহাম্মদ আলমগীর কবীর, লোক প্রশাসন বিভাগের সভাপতি জেবউননেছাসহ ৩৫-৪০ জন শিক্ষক উপস্থিত ছিলেন।

পিডিএসও/হেলাল