মোবাইলে প্রেম, দেখা করতে এসে ধর্ষণের শিকার

প্রকাশ : ১৪ ডিসেম্বর ২০১৭, ১৭:২০

অনলাইন ডেস্ক

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় মোবাইলে প্রেমের সূত্রে প্রেমিক শফিকের সঙ্গে দেখা করতে এসে ধষর্ণের শিকার হয়েছেন স্বামী পরিত্যক্তা এক গার্মেন্টস কর্মী। এ ঘটনায় এখনও কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

গত সোমবার মুক্তাগাছা উপজেলার কালিকা পুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ নিয়ে বুধবার সন্ধ্যায় মুক্তাগাছা থানায় একটি মামলা করা হয়েছে।

নির্যাতিত গার্মেন্টস কর্মী টাঙ্গাইলের মধুপুর উপজলোর জটাবাড়ি গ্রামের বাসিন্দা। শফিক মুক্তাগাছা উপজেলার জামগড়া গ্রামে আজাহারের ছেলে। সাহেব আলী একই এলাকার বাসিন্দা।

বিষয়টি নিশ্চিত করে মুক্তাগাছা থানা পুলিশের ওসি আলী আহাম্মদ বলেন, প্রেমিক শফিকের সঙ্গে মোবাইল ফোনে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে ওই গার্মেন্টস কর্মীর। প্রেমের টানে শফিকের বাড়িতে বেড়াতে আসে গার্মেন্টস কর্মী। ঘুরতে যাওয়ার কথা বলে মেয়েটিকে সন্ধ্যায় পাশের কালিকাপুর এলাকায় নিয়ে যায় শফিক। সেখানে রাত গভীর হলে শফিক ও তার বন্ধু সাহেব আলী ওই মেয়েকে ধর্ষণ করেন।

ওই নারীর চিৎকার শুনে স্থানীয়রা এসে তাকে উদ্ধার করে। এ সময় শফিক ও তার বন্ধুকে আটক করে স্থানীয়রা। তবে তারা কৌশলে পালিয়ে যায়।

সোমবার রাতে ধর্ষিতাকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে পুলিশ। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলেও জানান ওসি।

পিডিএসও/রিহাব