অস্ত্রের মুখে চেক নেয়ার অভিযোগ, আটক ৪

প্রকাশ : ১২ জানুয়ারি ২০১৭, ১১:৫৪

অনলাইন ডেস্ক

আগ্নেয়াস্ত্রের মুখে চেক লিখিয়ে নেয়ার অভিযোগে লক্ষ্মীপুরে সাবেক এক যুবদল নেতাসহ চারজনকে আটক করেছে পুলিশ। পুলিশ সুপার আ স ম মাহাতাব উদ্দিন জানান, সদর উপজেলার গোপীনাথপুর গ্রামের ভাই-বোন আবদুস সাত্তার ও কোহিনূরের কাছ থেকে বুধবার দুটি চেক লিখিয়ে নেয়ার অভিযোগ পেয়ে পুলিশ অভিযানে নামে।

আটকরা হলেন ফরহাদ উদ্দিন সিফাত (১৮), নোমান (২২), মাহবুবুর রহমান হৃদয় (১৮) ও সদর উপজেলার দক্ষিণ হামছাদী ইউনিয়ন যুবদলের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক নজরুল ইসলাম জসিম (৩০)।

পুলিশ জানায়, গোপীনাথপুরে আবদুস সাত্তারের মুদি দোকান রয়েছে। আর কোহিনূরের স্বামী থাকেন বিদেশে। আটক চারজনের মধ‌্যে জসিম ওই গ্রামেরই বাসিন্দা। তবে সাত্তারদের সঙ্গে জসিমের আগে থেকে কোনো লেনদেন বা বিরোধের বিষয় ছিল কি না অথবা এটা স্রেফ চাঁদাবাজির কোনো ঘটনা কি না তা পুলিশের কথায় স্পষ্ট হয়নি। পুলিশ সুপার বলেন, থানার তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী জসিম তার সহযোগীদের নিয়ে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে চেক লিখিয়ে নেয়। সে দীর্ঘদিন ধরে এলাকায় বিভিন্ন ধরনের অপকর্ম চালিয়ে আসছিল।

তিনি জানান, অভিযোগ পাওয়ার পর পুলিশ লক্ষ্মীপুর শহরের এনসিসি ব্যাংকে ওত পেতে থাকে এবং চেকসহ সিফাতকে আটক করে। তার কাছে তথ্য পেয়ে আটক করা হয় নোমানকে। পরে গোপীনাথপুর গ্রামে অভিযান চালিয়ে জসিম ও তার সহযোগী হৃদয়কে আটক করা হয়। জব্দ করা হয় এনসিসি ও ইসলামী ব্যাংকের ছয় লাখ টাকার চারটি চেক।

এছাড়া তাদের কাছ থেকে দুটি এলজি, একটি একনলা বন্দুক, একটি চাপাতি, একটি ছোরা ও ছয়টি গুলি উদ্ধার করা হয় বলে জানিয়েছে পুলিশ। মাহাতাব উদ্দিন বলেন, লক্ষ্মীপুর সদর থানায় জসিমের নামে অস্ত্র, চুরি, ডাকাতি, অপহরণ ও চাঁদাবাজিসহ বিভিন্ন অভিযোগে ছয়টি মামলা রয়েছে। আটক সবার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

পিডিএসও/কেও/হেলাল