কলাতলীতে ২৮ রোহিঙ্গা উদ্ধার

সাগরপথে মালয়েশিয়া পাচারের চেষ্টা

প্রকাশ : ১৫ মে ২০১৯, ০৯:০৪

অনলাইন ডেস্ক
উদ্ধার হওয়া রোহিঙ্গা নারী পুরুষ ও শিশু

সাগরপথে মালয়েশিয়া পাচারের উদ্দেশে কক্সবাজারের কলাতলীর শুকনাছড়ি ও দরিয়ানগর সমুদ্র ঘাটে জড়ো করা ২৮ নারী পুরুষ ও শিশুকে আটক করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১০টায় শুকনাছড়ি ও দরিয়ানগর এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।

পুলিশ জানায়, আটকরা রোহিঙ্গা। এদের মধ্যে ১৩ জন নারী, ৯ জন পুরুষ ও ৬ শিশু রয়েছে। এ সময় পাচারকাজে জড়িত একটি নৌকাও জব্দ করা হয়।

স্থানীয়রা জানায়, মালয়েশিয়ায় মানবপাচারকারী একটি চক্র গতকাল রাতে দরিয়ানগর ও শুকনাছড়ি ঘাটে জড়ো করে অর্ধশতাধিক নারী পুরুষ ও শিশু। বিষয়টি টের পেয়ে এলাকার শতাধিক মানুষ রাত সাড়ে ৯টার দিকে জড়ো হয়ে সমুদ্রসৈকত ও সৈকতে মানব পাচারকারীদের একটি বাড়ি ঘেরাও করে মোট ২৮ জনকে আটকে রাখে। পুলিশে খবর দেওয়া হলে রাত সাড়ে ১০টার দিকে সদর থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে ২৮ জনকে থানায় নিয়ে যায়।

স্থানীয় ইমাম হোসেন ও পারভেজ মোশাররফ জানান, মালয়েশিয়ায় আদম পাচারকারী চক্রের সদস্যরা দরিয়ানগর ও শুকনাছড়ি ঘাটকে আবারো মানবপাচারের রুট হিসাবে ব্যবহার শুরু করার খবর পেয়ে গতকাল রাতে এলাকাবাসী জড়ো হয়ে একটি বাড়ি থেকে ২৪ জন ও সমুদ্রসৈকত থেকে বাকি চারজনকে আটকে রাখে। এ সময় রাতের আঁধারে আরো কিছু মালয়েশিয়াগামীসহ মানবপাচারকারী দালাল সটকে পড়ে।

কক্সবাজার সদর থানার ওসি ফরিদউদ্দিন খন্দকার জানান, আটকদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা রোহিঙ্গা বলে স্বীকার করেছে। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে দালালদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এ সময় পাচারকাজে জড়িত একটি নৌকাও জব্দ করা হয়।

পিডিএসও/হেলাল