‘অনন্যা শীর্ষদশ সম্মাননা’ পেলেন ১০ গুণী নারী

প্রকাশ : ০৮ এপ্রিল ২০১৮, ২০:০০

অনলাইন ডেস্ক

প্রতিবছরের মতো এবারও সমাজের নানা প্রতিকূলতার মধ্যে নিজ নিজ ক্ষেত্রে অবদান রাখার স্বীকৃতি হিসেবে ‘অনন্যা শীর্ষদশ সম্মাননা-২০১৭’ পেলেন ১০ নারী। বছরব্যাপী আলোচিত-আলোকিত দশ কৃতীনারীকে এই সম্মাননা প্রদান করে স্বনামধন্য পাক্ষিক ‘অনন্যা’।

এ উপলক্ষে গতকাল শনিবার বিকালে বাংলা একাডেমির আবদুল করিম সাহিত্যবিশারদ মিলনায়তনে ‘অনন্যা শীর্ষদশ সম্মাননা ২০১৭’ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে অনন্যা পরিবার। 

পুরস্কারপ্রদান পর্বে অনন্যা সম্পাদক তাসমিমা হোসেনের পরিচালনায় সম্মানীত অতিথি হিসেবে ছিলেন কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন, প্রধান অতিথি হিসেবে ছিলেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক ড. ফারজানা ইসলাম। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক পররাষ্ট্র মন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি এমপি।

শুরুতেই সম্মাননাজয়ী নারীদের ফুলের তোড়া দিয়ে বরণ করে নেন অনন্যা সম্পাদক তাসমিমা হোসেন। উত্তরীয় পরিয়ে দেন সেলিনা হোসেন, ক্রেস্ট তুলে দেন প্রধান অধ্যাপক ড. ফারজানা ইসলাম এবং সনদ তুলে দেন ডা. দীপু মনি।

এবারের সম্মাননাপ্রাপ্ত নারীরা হচ্ছেন- অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম (শিক্ষা), ড. মোছাম্মাৎ নাজমানারা খানুম (প্রশাসনিক কর্মকর্তা), ফারজানা চৌধুরী (নারী উদ্যোক্তা/কর্পোরেট নারী), নবনীতা চৌধুরী (সাংবাদিকতা), স্বপ্না রাণী (গ্রামীণ নারীর স্বনির্ভরতা), নাদিরা খানম (তৃতীয় লিঙ্গ-অধিকার কর্মী), মাহফুজা আক্তার কিরণ (ক্রীড়া সংগঠক), নাজিয়া জাবিন (সমাজসেবা), শারমিন সুলতানা সুমি (সংগীত) ও মারিয়া মান্ডা (খেলাধুলা)। 

সম্মাননা অনুষ্ঠানের শুরুতে ছিল জাতীয় সংগীত। এরপর দলীয় নৃত্য পরিবেশন করে নৃত্যনন্দনের শিল্পীরা। সংগীত পরিবেশন করেন অনিমা মুক্তি গোমেজ। এরপর সম্মাননাপ্রাপ্তদের জীবনী নিয়ে তথ্যচিত্র প্রদর্শিত হয়।

প্রসঙ্গত, ১৯৯৩ সাল থেকে বছরব্যাপী আলোচিত-আলোকিত দশ কৃতীনারীকে অনন্যা শীর্ষদশ সম্মাননা দেয়া হচ্ছে। প্রতিবছর নিজ নিজ ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখার স্বীকৃতি হিসেবে দেশের ১০জন বিশিষ্ট নারী এই সম্মাননায় ভূষিত হয়ে থাকেন। গত ২৪ বছরে ২৪০ জন কৃতীনারী পেয়েছেন তাৎপর্যবহ এই সম্মাননা।

পিডিএসও/তাজ