শিল্পকলায় পদাতিকের পাঁচ দিনব্যাপী নাট্য ‍উৎসব

সম্মাননা পাচ্ছেন সেলিম আল দীন ও জামিল আহমেদ

প্রকাশ : ০৫ এপ্রিল ২০১৮, ১৪:২২ | আপডেট : ০৫ এপ্রিল ২০১৮, ১৪:৪৪

অনলাইন ডেস্ক

দেশের জনপ্রিয় নাট্য সংগঠন পদাতিক নাট্য সংসদ এ বছরও আয়োজন করতে যাচ্ছে ‘সৈয়দ বদরুদ্দীন হোসাইন স্মৃতি নাট্যৎসব ও স্মারক সম্মাননা ২০১৮’। এবারের আয়োজনে সংগঠনটির পক্ষ থেকে দেশবরেণ্য দুজন নাট্যব্যক্তিত্বকে সম্মাননা দেয়ার জন্য মনোনীত করা হয়েছে। তারা হলেন- অধ্যাপক সৈয়দ জামিল আহমেদ ও নাট্যাচার্য সেলিম আল দীন (মরণোত্তর)।

ঢাকার সেগুনবাগিচার জাতীয় নাট্যশালার দুটি মিলনায়তনে পাঁচ দিনব্যাপী এই উৎসব আজ বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হয়ে ৯ এপ্রিল পর্যন্ত চলবে। উৎসবে প্রতিদিন বিকেল ৫টা থেকে উন্মুক্ত মঞ্চে থাকবে বিভিন্ন সাংস্কৃতিক পরিবেশনা। সন্ধ্যা ৭টায় মিলনায়তনে থাকবে নাটকের মঞ্চায়ন।

নাট্যশালার মূল হলে আজ বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৫টায় প্রদীপ প্রজ্বালনের মাধ্যমে উৎসবের উদ্বোধন ও একই সঙ্গে স্মারক সম্মাননা প্রদান করবেন বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, এমপি। সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রামেন্দু মজুমদার, মামুনুর রশীদ, আকতারুজ্জামান। অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করবেন পদাতিকের সভাপতি তাসনীন হোসাইন তানু।

এই উৎসবে ৫ এপ্রিল মঞ্চস্থ হবে প্রাচ্যনাটের নাটক ‘সার্কাস সার্কাস’, মণিপুরি থিয়েটারের নাটক ‘ইঙাল আঁধার পালা’। ৬ এপ্রিল শুক্রবার থাকবে পদাতিকের ‘গুণজান বিবির পালা’ ও দেশ নাটকের ‘নিত্যপুরাণ’।

৭ এপ্রিল শনিবার থাকবে আরণ্যকের নাটক ‘ইবলিশ’ ও অন্বেশা থিয়েটারের ‘জয়তুন বিবির পালা’। ৮ এপ্রিল রোববার থাকবে আগন্তুকের নাটক ‘ধলেশ্বরী অপেরা’ ও পালাকারের নাটক ‘উজানে মৃত্যু’। ৯ এপ্রিল সোমবার থাকবে নাট্যজন প্রযোজিত নাটক ‘তিন মোহনা’ ও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগের নাটক ‘স্বপ্নরমণীগণ’।

এছাড়া উৎসব উপলক্ষে আগামী ১১ এপ্রিল বুধবার বিকেল ৫টায় শুরু হবে শিল্পকলা একাডেমির কনফারেন্স রুমে সেমিনার। আলোচনার বিষয়- ‘সৈয়দ বদরুদ্দীন হোসাইন, প্রগতির পথে প্রতিদিন সারাদিন’।

প্রসঙ্গত, গত আট বছর ধরে ‘সৈয়দ বদরুদ্দীন হোসাইন স্মারক সম্মাননা’ প্রদান করছে পদাতিক। এর আগে এই সম্মাননা পেয়েছেন- নাট্যব্যক্তিত্ব মামুনুর রশীদ (২০১০), শিমুল ইউসুফ (২০১০), ম. হামিদ (২০১১), ফেরদৌসী মজুমদার (২০১১), রামেন্দু মজুমদার (২০১২), নাসির উদ্দীন ইউসুফ (২০১২), আতাউর রহমান (২০১৩), কেরামত মওলা (২০১৩),  আলী যাকের (২০১৪), সৈয়দ শামসুল হক (২০১৪), অধ্যাপক মমতাজ উদ্দীন আহমদ (২০১৫), আসাদুজ্জামান নূর (২০১৫), ড. ইনামুল হক (২০১৬), সারা যাকের (২০১৬), প্রয়াত এস এম সোলায়মান (মরণোত্তর) (২০১৭) ও লাকী ইনাম (২০১৭)। 

পিডিএসও/তাজ